fbpx

ফ্রোজেন শোল্ডার (জমাট কাঁধ/কাঁধের জড়তা) হচ্ছে কাঁধের জোড়ের একটি প্রদাহ জনিত অবস্থা। এটা প্রায়শ কাঁধের বারংবার ব্যবহারের কারনে হয়ে থাকে বা জোড়ায় রক্ত প্রবাহ কমে গিয়ে হয়ে থাকে। কাঁধের সহযোগী মাংশপেশি সমূহ সময়ের সাথে সাথে ক্রমন্বয়ে দূর্বল হতে থাকে। বাহু অস্থির বলাকৃতির মাথা কোটর থেকে বের হয়ে আসে। যখন এমনটা ঘটে তখন কাধেঁর জোড়ার নড়াচড়ায় সীমাবদ্ধতা ও ব্যথা দেখা দেয়।

ফ্রোজেন শোল্ডার এর কি কারনে হতে পারে?

কাঁধের অস্থির সাথে সংযুক্ত পেশি সমূহের দ্বারা হয়ে থাকে। কাঁধের চলন এই মাংশ পেশি সমূহকে রোটেটর বলে যা বাহু, বুক ও পিছনের পিঠের অন্যান্য পেশি সমূহের সাথে সহযোগে কাজ করে। সাধারনত এ মাংশপেশি সমূহ শরীরের চলনকে সাহায্য করার জন্য একটা সমানুপাতিক ছন্দে চলাচল করে। ফ্রোজেন শোল্ডার বা কাঁধের জড়তার সৃষ্টি হয়। যখন এক বা একাধিক পেশি বা ক্ষতিগ্রস্থ হয় বা আঘাতের কারনে আটকে থাকে। ফলে জয়েন্ট শক্ত হয়ে যায় যা ব্যথার সাথে হাত নাড়ানো কঠিন করে তোলে।

ফ্রোজেন শোল্ডার/কাঁধের জড়তার জন্য বিভিন্ন কারন রয়েছে। তবে সবচেয়ে প্রচলিত কারন হচ্ছে কাঁধে জয়েন্টের ব্যবহার না করা। ফ্রোজেন শোল্ডার/জমান কাঁধের অন্য প্রধান কারন হচ্ছে বাহু অস্থি (হিউমেরামের) মাথায় কোন ভাঙ্গা। এটি অষ্টিওপোরোসিস (হারক্ষয়) এ আক্রান্ত বয়স্ক ব্যক্তির ক্ষেত্রে বা কোন আঘাতের পরে যে স্থানে হাড়ের প্রাস্তীয় অংশ ভেঙ্গে যায়। সে ক্ষেত্রেও হতে পারে।  ডায়েবেটিস আর একটি খুবই অন্যতম কারন জমাট কাঁধের জন্য।  এ সমস্ত কারন গুলো কাঁধের চলন গতি কমায় এবং সময়ের সাথে ক্রমান্বয়ে ফ্রোজেন শোল্ডার তৈরী করে।

রোগ নির্নয়ঃ-  আপনার ফ্রোজেন শোল্ডার বা কাঁধের জড়তা আচে কিনা তা কি ভাবে বুঝবেন?

ফ্রোজেন শোল্ডার /কাঁধের জড়তা এডহেসিভ ক্যাপসুলাইটিস বা জমান ক্যাপসুলাইটিস নামেও পরিচিত। যে খানে কাঁধের জোড়ের ক্যাপসুলে প্রদাহ হয়ে শক্ত হয়ে যায়। এই ব্যথা মাঝে মাঝে এই তীব্র হয় যে নড়াচড়ার গতিকে সীমিত করে দেয়। ফ্রোজেন শোল্ডারের একজন রোগী ক্রমাগত ব্যথা অনুভব করার কারনে হাত তুলতে সমস্যা হয়।

ফ্রোজেন শোল্ডার প্রায়শ ছোট আঘাত বা জোড়ার টান লাগা থেকে শুরু হয় যা টিস্যুতে প্রগহের সৃষ্টি করে। য কাঁধ জুরে ব্যাথা তৈরি করে। এটি সাধরন কাজ সমূহ যেমন-চুল আচরানো, ব্রাশ করা, জামার বোতাম লাগানো পিছনের পকেটে হাত দেওয়া। দরজার হাতল খোলা, ভেজা কপর মোচড়ানো ইত্যাদিতে ব্যথা হবে ও হাত আটকে যাবে। ব্যথা এত তীব্র হতে পারে যে রোগী রাত ঘুমাতে পারে না। সকালো ব্যথা  পরিলক্ষীত হয় এবং দিন বাড়ার সাথে সাথে কমতে থাকে। যাই হোক হাত বেশিক্ষন বিশ্রামে রাখলে এবং হঠাৎ নড়াচড়া করতে গেলো বা উপরে উঠাতে পারেন না।

ফ্রোজেন শোল্ডার বা জমাট কাঁধের কিছু সহজ চিকিৎসাঃ-

কিছু বিষয় অন্তভূক্ত করা যেতে পারেন যেমন=

  1. রেঞ্জ অফ মেশিন এক্সারসাইজ
  2. এটি ইনফ্লামেটরী ঔষধ পত্র
  3. স্টেরয়েড ইনজেকশন
  4. কাঁধের চার পাশের পেশী সমূহের ক্রমান্বিয়তের শক্তি বৃদ্ধি

ব্যথা নিয়ন্ত্রন এবং কাঁধের জয়েন্টের গতি শীতলতা পুনরোদ্ধার বা উন্নতিতে সহায়তা করার জন্য বেশির ভাগ ক্ষেত্রে ফিজিওথেরাপি দেওয়ার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়।

প্রথম দিকেই সঠিক চিকিৎসা ব্যবস্থাপনা পেলে আপনি এটার লক্ষন সমূহ কমাতে এবং রোগ থেকে সেরে উঠাকে ত্বরান্বিত করতে পারবেন।

যতি কাঁধের জড়তার চিকিৎসা না করা হয় এটা দীর্ঘ মেয়াধী ব্যথা, জয়েন্ট শক্ত হয়ে জমে যাওয়া গতিশীলতা কমে যাওয়ার মত জটিল বিষয়ে রুপ নিতে পারে।

আমরা কি ভাবে ফ্রোজেন শোল্ডার প্রতিরোধ করতে পারি?

এই গুরুতর অবস্থা প্রতিরোধ করার জন্য আপনাকে অবশ্যই হঠাৎ স্বজোরে হাত নাড়া দেয়া বন্ধ করতে হবে। সবকিছু স্বাভাবিক ও শিথিল রাখতে ঘন ঘন আপনার বাহু প্রসারিত করতে হবে। ভাল ঘুম এর প্রয়োজন এবং মানসিক চাপ এড়াতে হবে। আপনার কাঁধ উষ্ণ রাখা ভালো, তার জন্য প্রয়োজনীয় গরম কাপড় ও হিটির প্যাড ব্যবহার করা যেতে পারে।

ফ্রোজেন শোল্ডার প্রতিরোধ সর্বোত্তম উপায় হল ভাল অঙ্গ বিন্যাস বা ভঙ্গিতে অবস্থান করা। আপনি যদি বেশি মোটাসোটা বা অতিরিক্ত ওজনের হয়ে থাকে তবে শরিরের সঠিক আকৃতি বজায় ও ওজন সীমার মধ্যে রাখুন। আপনি যতবেশি ওজন বহন করবেন তত বেশি চাপ আপনার কাঁধে জয়েন্ট ও টেন্ডনের উপর পড়বে। আপনী যদি ডেকে কাজ করেন তবে প্রতি ঘন্টায় 10 মিনিটের জন্য বিরতি নিন উঠে দাঁড়ান, হাঁটা হাটি করুন।

অবশেষে এটা কষ্ট যে ফ্রোজেন শোল্ডার একটি গুরুত্ব অবস্থা যেটার গতানুগতিক পরিনিত খুব খারাপ।

ঠান্ডা তাপমাত্রার বিষয়ে শর্তকতা, অতিরিক্ত নড়াচড়া এড়িয়ে চলা িএবং আটকিয়ে যাওয়া পেশিগুলো উষ্ণ রাখা খুব খুরুত্বপূর্ণ এই অবস্থা নিয়ম তান্ত্রিক ভাবে সময়ে সাথে উন্নতি হবে তবে একজনের স্বাভাবিক রুটিনে ফিরে আসতে বেশ কয়েক সপ্তাহের ফিজিও থেরাপি চিকিৎসা ও নিজ যত্ন  প্রয়োজন হতে পারে।

Dr. M Shahadat Hossain
Follow me
Sep 13, 2022

সাইনোসাইটিক হেডেক

ঘন ঘন মাথাব্যথার একটি ব্যাপকভাবে স্বীকৃত ক্লিনিক্যাল কারণ হল সাইনুসাইটিস। ইন্টারন্যাশনাল হেডেক…
Sep 05, 2021

হাঁটু ব্যথার কারণ কি?

বর্তমানে মাস্কুলোস্কেলেটাল সমস্যাগুলোর মধ্যে হাঁটু ব্যথায় ভুগছেন, এমন রোগীর সংখ্যা অনেক। হাঁটুর…

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This field is required.

This field is required.

1 × 2 =

Call Now