fbpx

ডেল্টয়েড পেশী হল একটি বৃহৎ ত্রিভুজাকার আকৃতির পেশী যা গ্লেনোহুমেরাল জয়েন্টের উপরে থাকে এবং যা কাঁধকে তার গোলাকার আকৃতি দিয়ে থাকে। এটি তিনটি স্বতন্ত্র অংশ নিয়ে গঠিত (পূর্ববর্তী বা ক্ল্যাভিকুলার, মধ্যম বা অ্যাক্রোমিয়াল, এবং পোস্টেরিয়র/ পেছনের বা মেরুদণ্ড)। প্রধানত কাঁধ আড়াআড়ি ভাবে উপরে তুলতে হিউমারাসের মাথার স্টেবিলাইজার হিসাবে কাজ করে। সেইসাথে সামনের উচ্চতায়  হাত উঠাতে সাহায্য করে।   ডেলটয়েড একটি অত্যন্ত শক্তিশালী পেশী এবং এটি অনেক দৈনন্দিন কাজ করতে সাহায্য করে যেমন-আলমারি থেকে জামাকাপড় নেওয়া ও রাখা, শপিং ব্যাগ বহন করা, চুল ধোয়া থেকে শুরু করে অনেক অ্যাথলেটিক বা খেলা দুলা সংক্রান্ত কার্যকলাপ। 

সোল্ডার এর ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস হলে এটি একই সাথে আপনার রোটেটর কাফ বা বাইসেপ টেন্ডনের মধ্যে প্রদাহ বা ব্যথা অনুভব করার জন্য প্রয়োজনীয় সকল কার্যকালাপ সাধন করে থাকে। আর তাই অনেক সময় একে রোটেটর কাফ টিয়ার ও বলা হয়ে থাকে।  আপনার কাঁধের পেশী ডেল্টয়েড, রোটেটর কাফ এবং টেন্ডন, লিগামেন্ট, বার্সা এবং  উপরের বাহুর হাড় স্ক্যপুলা, ক্লাভিকল ও হিউমেরাস নিয়ে সোল্ডার জয়েন্ট গঠিত। কাঁধে আঘাতের ফলে কাঁধে হালকা থেকে গুরুতর প্রদাহ ডেল্টয়েড ম্যাসেলে হতে পারে। আর যদি সেই আঘাতের তীব্রতা আপনার রোটেটর কাফ ম্যাসেলে হয় তাহলে অনেক সময় দেখা যায় এতে রোটেটর কাফ ম্যাসেল ফুলে যায়, কাঁধের ব্যথার সৃষ্টি হয়।

ডেল্টয়েড টেন্ডিনাইটিস

ডেল্টয়েড ম্যাসেলের তিনটি অংশ আছে-

  • অগ্রবর্তী অংশ
  • মধ্যবর্তী অংশ
  • পিছনের অংশ

ডেল্টয়েড ম্যাসেলের নার্ভ বা রগঃ  

  • অ্যক্সিলারি নার্ভ
  • সার্ভাইক্যাল-৫ এবং সার্ভাইক্যাল- ৬
  • পোস্টেরিয়র কর্ড অব ব্রাকিয়াল প্লেক্সাস

ডেল্টয়েড ম্যাসেলের রক্ত সরবারাহ কারী রক্তনালীঃ

  • পোস্টেরিয়র চারকামপ্লেক্স হিউমেরাল আরটারি
কাঁধের টেন্ডোনাইটিসের কারণ কী?

কাঁধের টেন্ডোনাইটিসের কারণ কী?

কাঁধের টেন্ডোনাইটিস প্রায়শই এর কাছাকাছি থাকা অন্যান্য কাঠামো বা পেশীর মধ্যে আঘাতের ফলে হয়ে থাকে, এছাড়াও সরাসরি ডেল্টয়েড ম্যাসেলে আঘাতের ফলেও হতে পারে। এই অবস্থাটি কিছু খেলাধুলায় ঘটে থাকে, যেখানে আপনার হাত বারবার মাথার উপর নিতে হয়। এই ধরনের খেলার মধ্যে রয়েছে বেসবল, ভারোত্তোলন, ভলিবল, র‌্যাকেট এবং সাঁতার। এছাড়াও মোটর গাড়ির সংঘর্ষ, অ্যাক্সিলারি নার্ভ ড্যামেজ, ভারী জিনিস উত্তোলন, দীর্ঘ সময় ধরে টাইপ করা,ঘাড়ে সরাসরি আঘাত বা ট্রমা।

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিসের লক্ষণগুলি কী কী?

প্রতিটি ব্যক্তির জন্য কাঁধের টেন্ডোনাইটিসের লক্ষণগুলি কিছুটা আলাদা। উপসর্গ অন্তর্ভুক্ত হতে পারে:

  • কাঁধে ব্যথা
  • রাতে ব্যথা
  • নির্দিষ্ট অবস্থানে আপনার হাত ধরে রাখতে অক্ষমতা
  • ত্বকের বিবর্ণতা, ক্ষত এবং সহ হাতের চারপাশে স্পষ্ট ফোলাভাব থাকবে।
  • বিশ্রামের সময় বা বাহু নড়াচড়া করার সময় তীব্র ব্যথা।
  • হাত দিয়ে দৈনন্দিন জীবনযাত্রার কার্যক্রম পরিচালনা করা খুবই কঠিন হয়ে পড়া।

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস কিভাবে নির্ণয় করা হয়?

আপনার স্বাস্থ্যসেবা প্রদানকারী চিকিৎসক আপনার সম্পূর্ণ স্বাস্থ্যের ইতিহাস নেবেন এবং একটি শারীরিক পরীক্ষা করবেন। এছাড়াও আপনার ডায়াগনস্টিক পরীক্ষার প্রয়োজন হতে পারে যেমন:

১। এক্সরে- ফিল্মে অভ্যন্তরীণ টিস্যু, হাড় এবং অঙ্গগুলির সঠিক অবস্থান নির্দেশ করবে।

২। আল্ট্রাসনোগ্রাফি– উচ্চ-ফ্রিকোয়েন্সি শব্দ তরঙ্গ আপনার শরীরের ভিতরের নির্দিষ্ট অংশের একটি চিত্রের মাধ্যমে অঙ্গগুলির সঠিক অবস্থান নির্দেশ করবে।

৩। এমআরআই- বড় চুম্বক এবং কম্পিউটার আপনার শরীরের অঙ্গ বা কাঠামোর বিশদ চিত্র তৈরি করে দিবে।

আপনি কখন আমার স্বাস্থ্যসেবা প্রদানকারী চিকিৎসক কে কল বা যোগাযোগ করবেন?

আপনার স্বাস্থ্যসেবা প্রদানকারী চিকিৎসক কে কল করুন যদিঃ

  • আপনার ব্যথা খারাপ থেকে আরও খারাপ হতে থাকে
  • আপনার আহত হাতের নাড়াচড়া করা যদি কঠিন হয়ে যায়
  • আপনার কাঁধের ব্যথা যদি আপনার ঘুম ব্যাহত করে
  • আপনার কাঁধের ব্যথা এবং অস্বস্তি যদি আপনার স্বাভাবিক কাজকর্ম থেকে বিরত রাখে
  • আপনার বাহু বা হাতে যদি অসাড়তা অনুভব করেন
ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস কীভাবে চিকিৎসা করা হয়?

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস কীভাবে চিকিৎসা করা হয়?

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস এর চিকিৎসা আপনার লক্ষণ, বয়স এবং সাধারণ স্বাস্থ্যের উপর নির্ভর করবে। এছাড়া ও নির্ভর করবে আপনার  অবস্থা কতটা গুরুতর তার ওপর।

  • বিশ্রাম
  • বরফ দেয়া
  • স্ফট টিস্যু মোবিলাইজেশন
  • শারীরিক চিকিৎসা বা থেরাপিউটিক এক্সারসাইজ
  • শক্তিশালী করণ সর্ম্পকীত ব্যায়াম বা এক্সারসাইজ
  • হোম এডভাইছ এবং হোম এক্সারসাইজ
  • আল্ট্রাসাউন্ড থেরাপি
  • কর্টিকোস্টেরয়েড শট (ইনজেকশন)
  • ননস্টেরয়েডাল অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি ড্রাগস
  • অস্ত্রোপচার (গুরুতর আঘাত এর জন্য)

ডেল্টয়েড  টেন্ডোনাইটিস এর ধরনঃ

  • গ্রেড-১ ডেল্টয়েড  টেন্ডোনাইটিস

এই ধরনের টেন্ডোনাইটিসে, ডেল্টয়েড পেশীর ন্যূনতম ক্ষতি হয়। ব্যক্তি ন্যূনতম ব্যথা এবং ফোলা অনুভব করে। গতি এবং পেশীর দৃঢ়তার কিছু সীমাবদ্ধতা থাকতে পারে তবে এটি ব্যক্তিকে দৈনন্দিন জীবনযাত্রার ক্রিয়াকলাপ পরিচালনা করতে বাধা দেবে না যদিও খেলাধুলা সম্পর্কিত এবং পুনরাবৃত্তিমূলক ক্রিয়াকলাপ গুলি কিছুটা কঠিন হতে পারে।

  • গ্রেড-১ ডেল্টয়েড  টেন্ডোনাইটিস

এই ধরনের ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস ঘটে যখন ডেল্টয়েড পেশীর আংশিক ছিঁড়ে যায়। এ ধরনের ক্ষেত্রে কাঁধে ব্যথার তীব্রতা অনেক বেশি। ফোলা মোটামুটি উচ্চারিত হয়। উপরন্তু, হাত নড়াচড়া করা এবং গৃহস্থালী ও খেলাধুলার কার্যক্রম সম্পাদন করা বেশ কঠিন হবে।

  • গ্রেড-১ ডেল্টয়েড  টেন্ডোনাইটিস

এই ধরনের আঘাতে ডেল্টয়েড পেশী সম্পূর্ণ ছিঁড়ে যায়। ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিসের এই ফর্মের সাথে গুরুতর ব্যথা এবং ফোলাভাব রয়েছে। এছাড়াও আঘাতের স্থানে ত্বকের বিবর্ণতা এবং এরিথেমা রয়েছে। আক্রান্ত ব্যক্তি কোন উল্লেখযোগ্য মাত্রায় বাহু সরাতে সক্ষম হবে না। গৃহস্থালির কাজ সম্পন্ন করা রোগীর জন্য একটি বড় চ্যালেঞ্জ হবে।

কিভাবে ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস চিকিত্সা করা হয়?

যে কোনও স্ট্রেন/স্প্রেইন এর ক্ষেত্রে যেমন চিকিৎসা প্রোটোকল রয়েছে তেমনি, ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিস-এর ক্ষেত্রেও একই রকম চিকিৎসা প্রোটোকল রয়েছে।

চিকিৎসক সম্পূর্ণ বিশ্রাম এবং ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিসের অবস্থাকে আরও বাড়িয়ে তুলতে পারে এমন সমস্ত কার্যকলাপ থেকে বিরত থাকার পরামর্শ দিয়ে থাকেন। চিকিৎসক রোগীকে POLICE প্রোটোকল অনুসরণ করার পরামর্শ দিয়ে থাকেন, যা Protection, Optimal Loading, Ice Compression, and Elevation এই বিষয় গুলোকে নির্দেশ করে থাকে। ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিস রোগীদের ব্যথা উপশমের জন্য টাইলেনল বা আইবুপ্রোফেনের মতো NSAIDs দেয়া হয়ে থাকে ।

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিসের কারণে সৃষ্ট ফোলাভাব এবং প্রদাহ প্রায় দুই থেকে তিন সপ্তাহ পরে কমে গেলে রোগীকে ডেল্টয়েড পেশী প্রসারিত বা স্ট্রেচিং এর পাশাপাশি মেনুয়াল থেরাপি, এবং পেশি শক্তি বৃদ্ধি করার জন্য শারীরিক থেরাপিতে বা থেরাপিউটিক এক্সারসাইজ দিয়ে থকেন। শারীরিক থেরাপি বা থেরাপিউটিক এক্সারসাইজ শুধুমাত্র গ্রেড-৩ ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিসের জন্য সুপারিশ করা হয় যেখানে পেশী সম্পূর্ণ ছিঁড়ে যায়।

অন্যথায়, গ্রেড-১ এবং ২ ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিসের জন্য, দিনে দুই থেকে তিনবার ১৫-২০ মিনিটের জন্য বরফ প্রয়োগ করার কথা বলা হয়ে থাকে আর ফোলাভাবকে কমানোর জন্য কম্প্রেশন দেয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন।  

ডেল্টয়েড টেন্ডোনাইটিস এর জন্য ব্যায়াম

  • শরীরের সঠিক ওয়ার্ম আপ করা
  • শরীরের সঠিক কুলিং ডাউন করা
  • পেশি প্রসারিত করা বা স্ট্রেচিং করা
  • নমনীয়তা বা ফ্লেক্সিবিলিটি এবং শক্তি বৃদ্ধি হয় এই রকম ব্যায়াম করা
  • হাত ঝুলানো থাকে এমন ব্যায়াম করা
  • ডোরওয়ে চেস্ট স্ট্রেচ ব্যায়াম করা
  • আর্ম বা হাত সুইং ঘুরে এমন ব্যায়াম করা

কিভাবে ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিস প্রতিরোধ করবেন?

ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিস প্রতিরোধের কিছু উপায় নিচে দেয়া হল-

  • কোন ব্যায়াম শুরু করার আগে সঠিকভাবে ওয়ার্ম আপ করুন এবং একটি কঠোর কার্যকলাপ শেষ করার পরে পেশীগুলিকে শিথিল হওয়ার জন্য সময় দিন।
  • পেশাগত বিপদের কারণে ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিস প্রতিরোধ করতে, সমস্ত সুরক্ষা সরঞ্জাম পরা নিশ্চিত করুন এবং পেশীগুলিকে শান্ত করার জন্য ঘন ঘন বিশ্রাম নিন।
  • ক্রীড়াবিদ এর ক্ষেত্রে ইভেন্টের পরে একটি ম্যাসেজ করা যা ডেলটয়েড টেন্ডোনাইটিসের মতো পরিস্থিতি প্রতিরোধে সাহায্য করে।

References:

Dr. Sapia Akter
Sep 13, 2022

সাইনোসাইটিক হেডেক

ঘন ঘন মাথাব্যথার একটি ব্যাপকভাবে স্বীকৃত ক্লিনিক্যাল কারণ হল সাইনুসাইটিস। ইন্টারন্যাশনাল হেডেক…

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This field is required.

This field is required.

4 × 2 =

Call Now